যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের লজ্জা জনক হার।

in আমার বাংলা ব্লগ23 days ago

কেমন আছেন আমার বাংলা ব্লগের বন্ধুরা? আমি ভালো আছি। আশাকরি আপনারা ও ভালো আছেন।


গতকাল বিশ্বকাপের প্রস্তুতি হিসেবে বাংলাদেশ মুখোমুখি হয়েছিলো যুক্তরাষ্ট্র ক্রিকেট দলের। আসলে যুক্তরাষ্ট্র ক্রিকেট দল সম্বন্ধে আমার আগে তেমন কোন ধারণাই ছিলো না। কিন্তু বাংলাদেশ গতকালকে যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে ভয়াবহ খারাপ পারফরম্যান্স করেছে। এই ম্যাচের পর থেকে তাদের ব্যাপারে আমি কিছুটা ধারণা পেয়েছি। গতকাল টসে জিতে যুক্তরাষ্ট্র প্রথমে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ জানায়। তবে ব্যাটিংয়ে নেমে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা শুরু থেকেই খারাপ খেলতে থাকে। এক পর্যায়ে মাত্র ৬৮ রানে তারা চার উইকেট হারিয়ে ফেলে। শুরুর দিকে শুধু সৌম্য সরকারকে দেখে মনে হচ্ছিল সে কিছুটা স্বাচ্ছন্দ্যে খেলছিলো। কিন্তু ১৩ বলে মাত্র ২০ রান করে সেও আউট হয়ে যায়।

Screenshot_20240522_182224.jpg

Screenshot নেওয়া হয়েছে Deam Max চ্যানেল থেকে

আর ক্যাপ্টেন শান্ত এবং লিটন দাস যথারীতি তাদের খারাপ ফর্ম ধরে রেখে তারাও অল্প রানে আউট হয়ে যায়। এদিন অভিজ্ঞ সাকিব আল হাসান ও তেমন কিছু করতে পারেনি। তিনিও মাত্র ৬ রানে বিদায় নিলে বাংলাদেশ চার উইকেটে ৬৮ রানের দলে পরিণত হয়। তারপর জুটি গড়েন তাওহীদ হৃদয় এবং অভিজ্ঞ ফিনিশার মাহমুদুল্লাহ। তৌহিদ হৃদয় গত কিছুদিন যাবত দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছেন। এই দিনও তিনি দারুন একটি ইনিংস উপহার দেন। মাহমুদুল্লাহ এবং হৃদয় মিলে ৬৭ রানের একটি চমৎকার জুটি উপহার দেন। মাহমুদুল্লাহ আউট হওয়ার আগে ২২ বলে ৩১ রান করেন। শেষ পর্যন্ত তৌহিদ হৃদয়ের ৫৮ রানের সুবাদে বাংলাদেশ ২০ ওভার শেষে ছয় উইকেটে ১৫৩ রান করতে সমর্থ হয়। এদিন হৃদয় এবং মাহমুদুল্লাহ ছাড়া বাংলাদেশি আর কোন ব্যাটসম্যান তেমন উল্লেখযোগ্য কোনো রান করতে পারেনি।


১৫৪ রানের জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে যুক্তরাষ্ট্রের উপরের সাড়ির ব্যাটসম্যানরাও খুব একটা সুবিধা করতে পারেনি। যুক্তরাষ্ট্র এক পর্যায়ে ৭৮ রানে চার উইকেট হারিয়ে বসে। ৯৫ রানে তারা তাদের পঞ্চম উইকেট হারায়। কিন্তু তারপরে শুরু হয় দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাড়ানোর এক গল্পের। অভিজ্ঞ কোরি অ্যান্ডারসন আর হার্মিত সিং মিলে দুর্দান্ত একটি জুটি গড়েন। পঞ্চম উইকেটের পরে যুক্তরাষ্ট্রের আর কোন উইকেট পরে না। তারা দুজনে মিলে দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দেন। তবে মূল কাজটা করে দেন হার্মিত সিং। তিনি মাত্র ১৩ বলে ৩৮ রানের একটি বিধ্বংসী ইনিংস খেলেন। মূলত তার এই ইনিংস টার উপরে ভর করেই যুক্তরাষ্ট্র ম্যাচটা জিতে যায়। আর বাংলাদেশকে উপহার দেয় এক নিদারুর লজ্জা। দুর্দান্ত অলরাউন্ড পারফরমেন্সের জন্য হার্মিত সিং ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হন।


এই ম্যাচ জিতে যুক্তরাষ্ট্র তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে ১-০ তে এগিয়ে যায়। এখন দেখা যাক বাংলাদেশ পরের ম্যাচগুলোতে ঘুরে দাঁড়াতে পারে কিনা? এই ম্যাচগুলো বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। বড় একটা টুর্নামেন্ট শুরুর আগে যদি তারা ভাল ফলাফল করে। তাহলে তারা ইতিবাচক মনোভাব নিয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরু করতে পারবে। আর যদি তারা সিরিজটা যুক্তরাষ্ট্রের কাছে হেরে যায়? তাহলে দলের প্লেয়াররা মানসিকভাবে অনেক দুর্বল হয়ে পড়বে। এখন দেখা যাক বাংলাদেশ পরের দুটো ম্যাচ জিতে ঘুরে দেখাতে পারে কিনা।

আজকের মত এখানেই শেষ করছি। পরবর্তীতে আপনাদের সাথে দেখা হবে অন্য কোন নতুন লেখা নিয়ে। সে পর্যন্ত সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন।



logo.png

Support @heroism Initiative by Delegating your Steem Power

250 SP500 SP1000 SP2000 SP5000 SP

Heroism_3rd.png

standard_Discord_Zip.gif


break .png

Support @Bangla.Witness by Casting your witness vote


VOTE @bangla.witness as witness


witness_vote.png

OR

SET @rme as your proxy

witness_proxy_vote.png



🇧🇩🇧🇩ধন্যবাদ🇧🇩🇧🇩


@rupok

Sort:  

Upvoted! Thank you for supporting witness @jswit.

 23 days ago 

ভাই এই ম্যাচটি দেখা হয়নি আমার,কিন্তু স্কোর দেখে রীতিমতো লজ্জায় পড়ে গিয়েছি। আমাদের দেশের বেশিরভাগ ব্যাটসম্যানদের ব্যাটিং দেখলে মেজাজ খারাপ হয়ে যায়। তাওহীদ হৃদয় এবং রিয়াদ ছাড়া কেউ ভালো ব্যাট করতে পারেনি এই ম্যাচে। কয়েকদিন আগে তো দেশের মাটিতে জিম্বাবুয়ে দলকে একেবারে নাস্তানাবুদ করেছিল বাংলাদেশ দল। কিন্তু এখন এমন পারফরম্যান্স দেখে সত্যিই অবাক হয়ে গেলাম। আর এমনিতেই তো বাহিরের দেশে খেলতে গেলে, আমাদের দেশের খেলোয়াড়দের পারফরম্যান্স খারাপ হয়ে যায়। দেখা যাক পরবর্তী দুই ম্যাচে কি করে। যাইহোক এই ম্যাচের রিভিউ আমাদের সাথে শেয়ার করার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ ভাই।

 22 days ago 

ম্যাচটা দেখে এমন মেজাজ খারাপ হয়েছিলো যে বলার না। যুক্তরাষ্ট্রের মতো দলের কাছে যদি বাংলাদেশ ম্যাচ হেরে যায় তাহলে আর কিছু বলার থাকে না।

 22 days ago 

আসলেই ভাই এমন দলের সাথে হার একেবারেই মেনে নেওয়া যায় না। তাছাড়া আর মাত্র কয়েকদিন পর তো টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরু হবে। বিশ্বকাপের আগে এমন পারফরম্যান্স দেখলে কার না মেজাজ খারাপ হবে। যাইহোক আজকের ম্যাচটি মনে হচ্ছে জিতবে বাংলাদেশ। বেশ ভালোভাবেই টার্গেট চেজ করছে।

 22 days ago 

আর ক্যাপ্টেন শান্ত এবং লিটন দাস যথারীতি তাদের খারাপ ফর্ম ধরে রেখে তারাও অল্প রানে আউট হয়ে যায়।

কথাটা খারাপ বলেন নি ভাই। ফর্ম রান না করে আউট হয়ে যাওয়ার ফর্ম। এরা যে শেষ কবে ভালো খেলেছিল এদের মনে হয়। আবার উনি প্রতিটা ম‍্যাচ হারার পরে প্রেস কনফারেন্সে এসে বলে আরও ২০-৩০ রান করতে পারলে ভালো হতো। এর চেয়ে লজ্জার আর কী হতে পারে। কেউই দায়িত্ব নিয়ে খেলেনি। বিশ্বকাপে কীভাবে নাজেহাল হবে সেটাই এখন দেখার বিষয়।

 22 days ago 

এই বিশ্বকাপে বাংলাদেশের জন্য ভয়াবহ সময় অপেক্ষা করছে।

 22 days ago 

খেলায় হার-জিত থাকবেই তবে নিজের দেশ হেরে গেলে মন থেকে একটু খারাপ-ই লাগে।বাংলাদেশ প্রথম ব্যাট করার সুযোগ পেয়েও হেরে যাওয়ায় পরের ম্যাচগুলির জন্য অনেক কঠিন হয়ে গেল।আশা করি পরের ম্যাচগুলি ভালো পারফরম্যান্স করতে সক্ষম হবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল।আপনি সুন্দর রিভিউ দিয়েছেন,অনেক ধন্যবাদ ভাইয়া।

 22 days ago 

খেলায় হার-জিত থাকবে এটা ঠিক দিদি। তবে এই রকম নবাগত একটা দলের সাথে ম্যাচ হেরে যাওয়া আসলেই লজ্জাজনক।

Coin Marketplace

STEEM 0.23
TRX 0.12
JST 0.029
BTC 66911.69
ETH 3521.53
USDT 1.00
SBD 3.19