আপনি শান্তি খুজছেন? পৃথিবীতে শান্তি আসলে কোথায়?দেখেন তো আমার সাথে একমত হতে পারেন কি না?

in life •  16 days ago

পৃথিবীর সকল মানুষের যেন একটাই উদ্দেশ্য একটু শান্তিতে থাকা। কিন্তু শান্তি আসলে কোথায়? আল্লাহর অসীম রহমত যে আল্লাহ আমাকে খুব ভালো রেখেছেন। অত টাকা পয়সাও নেই আবার খুব খারাপ অবস্থায় যে আছি এরকম ও নয়। পাশাপাশি আমার কিছু বন্ধু বান্ধব রয়েছে এর মধ্যে কেহ অনেক টাকা পয়সার মালিক কেহ আবার খুবই খারাপ অবস্থায়। আর সবথেকে বড় যে বিষয়টা হচ্ছে উভয় অবস্থার বন্ধুই আমার সাথে তাদের সমস্যা নিয়ে আলাপ করে থাকে।

1.jpg
source

তো যার টাকা পয়সা আছে সেও খুব টেনশনে থাকে। কি করবে বা কি করা উচিৎ সেটা নিয়ে কনফিউশানে থাকে। একটু ১৯ থেকে ২০ হয়ে গেলেই সে নার্ভাস হয়ে যায়। মোট কথা মানসিক শান্তির সে খুব অভাব বোধ করে থাকে।

আবার যে বন্ধু টার একবারে টাকা নেই তারও টেনশন অনেক বেশি। সে সবসময় এটাই ভাবে যে টাকা হলেই তার সব টেনশান শেষ হয়ে যাবে। মূলত তখন তাকে আমি এই টাকা ওয়ালা বন্ধুর উদাহরণ দেই। যে দেখ ওর অনেক টাকা আছে কিন্তু তোর মত টেনশনেও আছে। তাহলে টাকা থাকা না থাকার মধ্যে শান্তি যে নেই এটা তো স্পষ্ট। সেও একমত হল আমার কথায়।

তো যার টাকা নেই সে বলল তাহলে বন্ধু কি করা যায়। আমি তাকে কিছু করনীয় বলার চেষ্টা করলাম। প্রথমেই তাকে বললাম অবশ্যই পাঁচ ওয়াক্ত নামায পড়তে হবে নিয়মিত। সেজদাতে আল্লাহর কাছে দোয়া করতে হবে নিজের জন্য সাথে সমস্ত মুসলিম ভাই বোনের জন্য। সকল প্রকার হারাম থেকে বেঁচে থাকার চেষ্টা করতে হবে এবং এগুলো থেকে বেঁচে থাকার জন্য আল্লাহর সাহায্য চাইতে হবে।

সবথেকে বড় কথাটি হচ্ছে যতক্ষন আপনি আপনার সকল ব্যাপারে আল্লাহর উপর নির্ভর করতে না পারবেন ততক্ষনে আপনি কোন ভাবেই শান্তি লাভ করতে পারেবেন না। টেনশান আপনার পিছু কোন ভাবেই ছাড়বে না। সাধারণত মেডিকেল সাইন্সের দিকে তাকালে আপনি বুঝতে পারবেন যে সেকুলার দের মধ্যে বেশি স্ট্রক করে এবং সেটা দুঃশ্চিন্তা থেকেই বেশি হয়।

দুঃশ্চিন্তা থেকে মুক্ত থাকার জন্য আমি সব থেকে বড় যে উদাহরণ টা দিতে পছন্দ করি সেটা সেই সমস্ত মুসলিমদেরকে বিশেষ করে হুজুর শ্রেনীর জীবন কে রোড মডেল ধরতে পারেন। তারা সকল ব্যাপারে আল্লাহর উপর ছেড়ে দিয়ে নিজের সাধ্যমত চেষ্টা করে যায়। এবং এটাই একমাত্র পন্থা একটু শান্তিতে থাকার। এতবড় পৃথিবীর মালিকের উপর ভরসা করেই কেবল আপনি টেনশন মুক্ত থাকতে পারেন। যেটা হুজুরদের মধ্যে খুজে পাবেন। পাশাপাশি সিজদায় বেশি সময় দেয়ার চেষ্টা করবেন। এতে আপনার মানশিক প্রশান্ত অবশ্যই বাড়বে ইনশাআল্লাহ।

লেখাটি ভাললাগলে অবশ্যই উৎসাহ দিয়ে পাশে থাকবেন। আল্লাহ সবার ভাল করুন।

steem 2.jpg

আরও পড়ুনঃ

পৃথিবীতে সবকিছু এমনি এমনি হয়- একটি পাগলের প্রলাপ

অবচেতন মনের শেষ আশ্রয়স্থল আসলে কোথায় আপনি খেয়াল করেছেন কি?

আমার আসলে কি করা উচিত? খুব গুরুত্বপূর্ন একটি প্রশ্ন ছিল এটা আমার কাছে

নাস্তিকতা নাকি আস্তিকতা? কোনটি বেশি যৌক্তিক?

Authors get paid when people like you upvote their post.
If you enjoyed what you read here, create your account today and start earning FREE STEEM!
Sort Order:  

আপনার সাথে একমত হওয়া ছাড়া কোন উপায় নাই।

You just received a 33.51% upvote from @honestbot, courtesy of @silentsteem!
WaveSmall.gif

BOING! You got a 20.81% upvote from @boinger courtesy of @silentsteem!

Earn daily payouts by delegating to Boinger! We pay out 100% of STEEM/SBD!

You got a 37.48% upvote from @ptbot courtesy of @silentsteem!
Delegate STEEM POWER and start earning 100% daily payouts ( no commission ).
Visit https://ptbot.ga for details.

You got a 31.94% upvote from @whalepromobot courtesy of @silentsteem!

আপনার লেখাটা পড়ে খুব ভালো লাগলো। টাকা ছাড়া জীবন অচল কিন্তু টাকাই সকল সুখ না। মানসিক শান্তিই হল বড় শান্তি।

This post has received a 8.64 % upvote from @boomerang.

You have recieved a free upvote from @saiduzzaman
upvote.jpg