বুনো হাঁসের মাংসের রেসিপি

in আমার বাংলা ব্লগ2 years ago

হ্যালো বন্ধুরা, সবাই কেমন আছেন? আশা করি সবাই সুস্থ, স্বাভাবিক আছেন। সবাইকে আন্তরিক শুভেচ্ছা জানিয়ে আজকের ব্লগটি শুরু করছি।

আজকে আমি আপনাদের সাথে একটি রেসিপি শেয়ার করে নেবো। গতকাল রাতে আমি হাঁসের মাংস রান্না করেছিলাম। তবে এইবার যে হাঁসের মাংস রান্না করেছি সেটি হলো বুনো হাঁস। বুনো হাঁসের মাংসের স্বাদ সাধারণ হাঁসগুলোর চেয়ে অনেকটা সুস্বাদু হয়ে থাকে। বুনো হাঁসগুলো অনেক বড়ো বড়ো হয়ে থাকে আর অনেক মাংসও হয়ে থাকে। বুনো হাঁসের মাংস কষানো অবস্থায় মারাত্মক টেস্ট লাগে। আমি কষানো অবস্থায় কয়েকটা খাওয়ার সময় মনে হচ্ছিলো এখানেই চুলাটি অফ করে দিয়ে খাওয়া শুরু করে দিই😁। যাইহোক প্রথমবারের মতো বুনো হাঁসের মাংস খেয়ে অনেক মজাদার লাগলো আর এখন এই রেসিপিটির মূল পর্বের দিকে চলে যাবো।


☀প্রয়োজনীয় উপকরণসমূহ:☀

উপকরণ
পরিমাণ
বুনো হাঁসের মাংস
৩.২ কিলো
আলু
৪ টি
পেঁয়াজ
৪ টি
রসুন
৫ টি
আদা
১ টুকরো
তেজ পাতা
২ টি
জিরা, মরিচ, লবঙ্গ, দারুচিনি, শুকনো লঙ্কা
পরিমাণমতো
সরিষার তেল
পরিমাণমতো
লবন
৬ চামচ
হলুদ
৭ চামচ


বুনো হাঁসের মাংস,আলু, পেঁয়াজ, রসুন, আদা


তেজ পাতা, জিরা, মরিচ, লবঙ্গ, দারুচিনি, শুকনো লঙ্কা,সরিষার তেল, লবন, হলুদ


এখন রেসিপিটি যেভাবে প্রস্তুত করলাম---


☬প্রস্তুত প্রণালী:☬


➤বুনো হাঁসের মাংসগুলোকে প্রথমে ভালো করে জল দিয়ে ধুয়ে পরিষ্কার করে নিয়েছিলাম। এরপর আলুগুলো নতুন তাই খোসা তেমন ফেলানো লাগেনি, কেটে ছোট ছোট পিচ করে জল দিয়ে ধুয়ে নিয়েছিলাম।

➤পেঁয়াজ এর খোসা ছাড়িয়ে নেওয়ার পরে কেটে নিয়েছিলাম। এরপর রসুনগুলোর খোসা ছাড়ানোর পরে কোয়াগুলো আলাদা করে নিয়েছিলাম।

➤আদাটির খোসা ছালিয়ে নেওয়ার পরে কেটে ছোট পিচ করে নিয়েছিলাম।

➤পেঁয়াজ, রসুন, আদা মিক্সারে ফেলে পেস্ট তৈরি করে নিয়েছিলাম।

➤জিরা, মরিচ, লবঙ্গ, দারুচিনি, শুকনো লঙ্কা মিক্সারে দিয়ে দিয়েছিলাম এবং তাতে একটু জল দিয়ে ঘুরিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিয়েছিলাম।

➤কেটে রাখা আলুর পিচগুলো কড়াইতে করে ভাজা মতো করে নিয়েছিলাম।

➤কড়াইতে পরিমাণমতো তেল আর তেজ পাতা দিয়ে দিয়েছিলাম। এরপর তাতে হাঁসের মাংসগুলো ঢেলে দিয়েছিলাম।

➤মাংসগুলো দেওয়ার পরে তাতে পেস্ট করে রাখা সমস্ত মশলা আর পরিমাণমতো লবন, হলুদ দিয়ে দিয়েছিলাম। এরপর মাংসের সাথে সমস্ত মশলা উল্টেপাল্টে ভালো করে মিশিয়ে নিয়েছিলাম।

➤মেশানোর পরে মাংসগুলো বেশ অনেক্ষন ধরে ভালোভাবে কষিয়ে নিয়েছিলাম। আর কষানোর পরে তাতে দিয়ে দিয়েছিলাম ভাজা আলুর পিচগুলো।

➤আলুর পিচগুলো কষানো মাংসের সাথে মিশিয়ে নেওয়ার পরে তাতে পরিমাণমতো জল দিয়ে দিয়েছিলাম।

➤জল দিয়ে দেওয়ার পরে মাংস পুরোপুরি রান্না হয়ে আসা পর্যন্ত দেরি করেছিলাম।

➤অনেক্ষন দেরি করার পরে বুনো হাঁসের একটা দারুন মজাদার তরকারি তৈরি হয়ে গেছিলো। আর এটি গরম গরম পরিবেশন করে খেতে বেশ মজাও লেগেছিলো।

রেসিপি বাই, @winkles

শুভেচ্ছান্তে, @winkles


Support @heroism Initiative by Delegating your Steem Power

250 SP500 SP1000 SP2000 SP5000 SP

Heroism_3rd.png

Sort:  
 2 years ago 

EZrGNWcrMDNczaEXa66AEJHcKH7nrfa7r2fnEEb26owGbKmVZzVNY38ZTpQGcSKBRTWKQQ1NYenwo9LEQ2PvU7bfyvF5uQyBcpg9GAJ2va...2w7ep3LhhQa9kvWQkCLWjKffNejcyyHjp9ScganhREzkD3tjt9Po5p3UVrueKo7yazdVpNDXMDDSuBxwSR2of5d3Hw7x1SEccV31Hi7jLan7SSYxXeu1BPFSh4.png

হাঁসের মাংস অনেক মজার একটি মাংস। বুনো হাঁসের মাংস যদিও খাওয়া হয় নাই কখনো। তার পরও কৌতূহল হচ্ছে এবং খেতে মন চাচ্ছে। আপনার রেসিপির কালার অনেক সুন্দর হয়েছে। আপনি খুব সুন্দর ভাবে রেসিপি তৈরির প্রতিটি স্টেপ আমাদের সাথে শেয়ার করেছেন। আমার কাছে পারসোনালি অনেক ভালো লেগেছে আপনার রেসিপিটি।
আশা করি যদি কখনো সময় সুযোগ হয় অবশ্যই বুনো হাঁসের মাংস খেয়ে দেখবো। পাতি হাঁসের মাংস খেয়েছি, পাতি হাঁসের মাংস খেয়েই অনেক ভালো লাগছে তাহলে বুনো হাসের মাংসতো আরো মজা হবে এটা নিশ্চিত। যাইহোক, খুবই সুন্দর লোভনীয় ও ইউনিক একটি রেসিপি ছিলো এটি। আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ এই অসাধারণ ইউনিক রেসিপিটি আমাদের সাথে শেয়ার করার জন্য। দাদা,পরবর্তী আকর্ষনের অপেক্ষায় রইলাম। ❣️❣️❣️

EZrGNWcrMDNczaEXa66AEJHcKH7nrfa7r2fnEEb26owGbKmVZzVNY38ZTpQGcSKBRTWKQQ1NYenwo9LEQ2PvU7bfyvF5uQyBcpg9GAJ2va...2w7ep3LhhQa9kvWQkCLWjKffNejcyyHjp9ScganhREzkD3tjt9Po5p3UVrueKo7yazdVpNDXMDDSuBxwSR2of5d3Hw7x1SEccV31Hi7jLan7SSYxXeu1BPFSh4.png

 2 years ago 

বুনো হাঁসের মাংসের স্বাদ সাধারণ হাঁসগুলোর চেয়ে অনেকটা সুস্বাদু হয়ে থাকে।

দাদা আপনি আজকে যে লোভনীয় রেসিপি শেয়ার করেছেন দেখেই জিভে জল চলে আসছে। হাঁসের মাংস আমার এতটাই প্রিয় যে বলে বোঝানোর মত নয়। হাঁসের মাংস ভুনা খেতে আমি খুবই পছন্দ করি দাদা। আর আপনি এত সুন্দর ভাবে আপনার এই রেসিপি তৈরি করেছেন দেখে মনে হচ্ছে আপনার হাতের ছোঁয়ায় হাঁসের মাংসের স্বাদ আরও দ্বিগুন বেড়ে গেছে। আপনি যে একজন পাকা রাঁধুনি এতে কোন সন্দেহ নেই। আপনার দক্ষতার প্রশংসা করতেই হয় দাদা। আসলে কিছু কিছু মানুষ রয়েছে যাদের প্রশংসা করে গুনের কথা বলে শেষ করার মতো নয়। তাদের দলে আপনিও রয়েছেন। আপনি এত ভালো রেসিপি তৈরি করেন যে দেখে মাঝে মাঝে মুগ্ধ হয়ে যাই। আমিও রেসিপি তৈরি করতে পছন্দ করি। নিজের পছন্দের খাবারগুলো নিজে নিজে তৈরি করার মধ্যে অনেক আনন্দ রয়েছে। তবে আমি আপনার মত রান্নায় এতটা দক্ষতা অর্জন করতে পারিনি। আপনি তো একদম দক্ষতার সাথে দারুণভাবে রেসিপি তৈরি করেন দাদা। দাদা আপনার কাছে অনেক কিছু শেখার আছে। আপনি যখন মজার মজার সব রেসিপি তৈরি করে আমাদের মাঝে শেয়ার করেন সেগুলো দেখে আমার এতটাই ভালো লাগে যে আমিও চেষ্টা করি রেসিপি তৈরি করার জন্য। আপনার রেসিপি তৈরি দেখে আমিও নতুন কোন রেসিপি তৈরি করার জন্য অনুপ্রেরণা পাই। বুনোহাঁস আমি কখনো খাইনি। তবে এক প্রকারের হাঁস রয়েছে যেগুলো উড়তে পারে এবং কিছুটা বড় সাইজের হয়। সেই হাঁস আমি খেয়েছি। বড় সাইজের হাঁসগুলো খেতে সত্যিই অনেক ভালো লাগে। এই হাঁসগুলোতে যেমন মাংস বেশি হয় তেমনি খেতেও সুস্বাদু হয়। সাধারণ হাঁসগুলোর থেকে বড় হাঁসগুলো খেতে অনেক বেশি সুস্বাদু হয়। তবে যাই হোক দাদা এত মজার একটি রেসিপি শেয়ার করলেন দেখে অনেক ভালো লেগেছে দাদা। মজার মজার সব রেসিপি এভাবে শেয়ার করুন এই কামনাই করছি দাদা। আপনার জন্য শুভকামনা রইলো দাদা। ❤️❤️❤️

 2 years ago 

দাদা বুনোহাঁস বলতে এটা কি হাঁসের নাম ?নাকি ওই যে জঙ্গলে যেগুলো পাওয়া যায় সেগুলো? যাইহোক আপনার রেসিপি দেখে মনে হল খুব সুস্বাদু রয়েছে। সবথেকে তরকারি রং টা বেশ লোভনীয়। শীতকালে হাঁসের মাংস মানে তো অন্যরকম ফিলিংস। আপনি খুব সুন্দর ভাবে হাঁসের মাংস রেসিপি আমাদের মাঝে উপস্থাপন করেছেন। আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ দাদা।

 2 years ago 

বুনো হাঁস এর কণো নাম নেই, বুনো মানেই বুনোই। হ্যা এইগুলো বন জঙ্গলের।

 2 years ago 

আমি কষানো অবস্থায় কয়েকটা খাওয়ার সময় মনে হচ্ছিলো এখানেই চুলাটি অফ করে দিয়ে খাওয়া শুরু করে দিই

দাদা আপনার এই কথাটি শুনার পরই তো জিভে জল চলে আসলো। এমনিতেই হাঁসের মাংস আমার খুবই প্রিয়। তার উপর যদি বুনোহাঁস হয় তাহলে তো নিশ্চয়ই আরো খেতে মজাদার হয়েছে। শীতকাল এলেই হাঁসের মাংস বেশি খাওয়া হয়। কারণ শীতকালে হাঁসের মাংসের স্বাদ আরও দ্বিগুন বেড়ে যায়। আপনি এত সুন্দর ভাবে হাঁসের মাংস ভুনা করেছেন দেখেই তো খেতে ইচ্ছে করছে। এই দুপুর বেলায় হাঁসের মাংসের ভুনা দেখে মনে হচ্ছে যেন এক প্লেট ভাত নিয়ে বসে পড়ি আপনার হাঁসের মাংস ভুনা খাওয়ার জন্য। কিন্তু পুরা কপাল আপনিতো হাঁসের মাংস একা একাই খেলেন দাদা। তবে যাই হোক আপনি অনেক তৃপ্তি করে খেয়েছেন এটা জেনেই আমরা খুশি। আপনি এত দক্ষতার সাথে কি করে যে রেসিপি তৈরি করেন এটা ভেবে পাইনা। আসলে দাদা আপনার রেসিপি তৈরির প্রসেস গুলো অনেক সুন্দর হয়। আমি খুবই মনোযোগ দিয়ে আপনার তৈরি করা।রেসিপি গুলো দেখি। কারণ আপনার রেসিপি গুলো দেখেই বোঝা যায় খেতে অনেক সুস্বাদু হয়। একটি মানুষের মধ্যে এতটা গুন থাকতে পারে এটা মাঝে মাঝে ভেবে অবাক হয়ে যাই। একদিকে আপনি যেমন ভালো ছবি আঁকেন, অন্যদিকে ভালো ফটোগ্রাফি করেন, আবার এত মজার মজার সব রেসিপি শেয়ার করেন। সবকিছু মিলিয়ে সৃষ্টিকর্তা আপনাকে অনেক গুণ দিয়েছেন দাদা। আপনার এই কাজের মাধ্যমে আমরা সকলে অনুপ্রেরণা পাই দাদা।অনেক মজাদার বুনো হাঁসের মাংস রেসিপি আমাদের সকলের মাঝে শেয়ার করার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি দাদা।

 2 years ago 

দাদা,কি একটা রেসিপি দিলেন।ছবি দেখেই জিভে জল এসে পরেছে।আসলে কষানোর কালার টা দেখে আমারেই খেতে ইচ্ছে করছে।আর সত্যিই সরিষার তেল দিয়ে রান্না করলে যেকোনো মাংসই অনেক সুস্বাদু হয় ।এভাবে তৎক্ষণাৎ মসলা পেস্ট করে নিলে মাংসের স্বাদ দ্বিগুণ বেড়ে যায়। রেসিপি কালারটা অনেক জোস এসেছে। হাঁসের মাংস এবং চালের রুটি দিয়ে খেতে বেশ দারুন লাগে। ধন্যবাদ দাদা।

 2 years ago 

বনমোরগ বা বুন হাঁসের মাংস কখনো খাইনি। বুনোহাঁসের একটি ছবি যদি শেয়ার করতেন তাহলে অন্তত দেখতে পেতাম। আপনার রান্না টা এতটাই চমৎকার হয়েছে যে দেখেই খেতে ইচ্ছে করছে এ কথা বললেই তো আর খেতে পারব না হাহাহা। অনেক অনেক শুভকামনা রইল আপনার জন্য।

 2 years ago 

কি বলবো দাদা আপনার হাঁসের মাংস দেখে আমি আর স্ত্রীর থাকতে পারতেছি না। হাঁসের মাংস আমার অনেক প্রিয়। আমি রুটি দিয়ে খাইতে খুব ভালোবাসি। দাদা আপনি অনেক সুন্দর করে সব রকম উপকরণ দিয়ে বুনো হাঁসের মাংসটি তৈরি করেছেন। সত্যি অনেক সুন্দর হয়েছে। রেসিপিটি আমাদের মাঝে ভাগ করে নেওয়ার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ দাদা। আপনার জন্য আমার পক্ষ থেকে অনেক অনেক ভালোবাসা ও প্রাণঢালা শুভেচ্ছা রইল।

 2 years ago 

বুনোহাঁস রেসিপি দেখে তো জিভে জল চলে এসেছে দাদা। বুনো হাঁস খেতে সুস্বাদু হয় এটি জানি কিন্তু এখনো পর্যন্ত খাওয়া হয়নি। আপনার রেসিপিটি দেখতে অনেক লোভনীয় লাগছে। রেসিপির কালার টা খুব সুন্দর এসেছে। আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ দাদা একটা সুস্বাদু রেসিপি শেয়ার করার জন্য। আপনার জন্য অনেক শুভকামনা রইল।

 2 years ago 

প্রথমত হাসের মাংসই তো অনেক সুস্বাদু। তারপর আপনি আবার দিছেন বুনো হাসের মাংসের রেসিপি। যদিও আমি কখনো খাইনি। তবে রেসিপি টা দারুণ তৈরি করেছেন। এই দুপুরবেলা আপনার রেসিপি দেখলে নিজেকে সামলে রাখা যায় না। দেখলেই বোঝা যাচ্ছে অনেক সুস্বাদু হয়েছে। ধন্যবাদ আমাদের সাথে শেয়ার করার জন্য।।

 2 years ago 

বুনো হাঁসের মাংসের জিভে জল আসার মত একটি রেসিপি তৈরি করেছেন দাদা। এমনিতে হাঁসের মাংস খেতে আমার খুবই ভালো লাগে। বিশেষ করে হাঁসের মাংস শীতকালে খেতে খুবই ভালো লাগে। আপনি রেসিপিটা খুব সুন্দর ভাবে সাজিয়েছেন। মাংস কষানো মধ্যে রেখে খেতে শুরু করেছেন মনে হচ্ছে, অনেক টেস্ট হয়েছে। আমাদের মাঝে শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

Coin Marketplace

STEEM 0.19
TRX 0.13
JST 0.029
BTC 64130.23
ETH 3169.82
USDT 1.00
SBD 2.47