পারশে মাছ দিয়ে পেঁপের মজাদার রেসিপি

in আমার বাংলা ব্লগ8 days ago
হ্যালো বন্ধুরা, সবাই কেমন আছেন? আশা করি সবাই ভালো আছেন। সবাইকে আন্তরিক শুভেচ্ছা জানিয়ে আজকের ব্লগটি শুরু করছি।

আজকে আপনাদের সাথে একটা রেসিপি শেয়ার করে নেবো। আজকে আমি পেঁপের তরকারি রান্না করেছি। পেঁপে অনেকদিন খাওয়া হয়না তাই ভাবলাম আজকে পেঁপের তরকারি করা যাক। পেঁপে সব সিজনে খেতে বেশ ভালো লাগে, তাছাড়া পেঁপের তরকারি খেতে আমার কাছে বেশ স্বাদের লাগে। আর পেঁপের অনেক পুষ্টিগুণ রয়েছে আবার সমস্যারও কিছু দিক রয়েছে, তবে এই সমস্যাটা কিছু অসাবধানতাবশত হয়ে থাকে। পেঁপেতে অনেক ভিটামিন আর খনিজ পদার্থ থাকে যেগুলো আমাদের হজম এর সমস্যায় কার্যকারিতা ভূমিকা রাখে আবার বিভিন্ন রোগের প্রতিরোধ হিসেবে কাজ করে। পাকা পেঁপের রসে যেমন কার্যকারিতা আছে আবার এই পেঁপে কাঁচা অবস্থায় তার রস খেলে অনেকের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দিতে পারে। অনেকের কাঁচা পেঁপে সালাদ হিসেবে খেতে দেখেছি। তবে আমিও একদিন খেয়েছিলাম কিন্তু কেমন যেন কস বা তেতো টাইপ এর লেগেছিলো। প্রায় সময় পেঁপে খেলে আমাদের ত্বকেরও উপকার হয় কিন্তু কে খায় প্রতিনিয়ত, আমি নিজে জানা সত্বেও খাইনা। কাঁচা পেঁপে আমার কাছে বেশি ভালো লাগে একমাত্র আলুর সাথে তরকারি রান্না করে আর পেঁপে ভাতে। ভাজা লঙ্কা দিয়ে পেঁপে গুলে খেতে দারুন লাগে আমার কাছে, আর যদি একটু ঝাল ঝাল হয় তাহলে খেতে আরো বেশি টেস্ট লাগে। আজকের তরকারিটাও আমি পেঁপে, আলু আর পারশে মাছ দিয়ে রান্না করেছিলাম। এই তরকারি রান্নাটায় আমি কালো জিরা ব্যবহার করেছিলাম, খেতে বেশ ভালো লেগেছিলো তরকারিটা। এখন আমি এই রেসিপিটার মূল উপকরণের দিকে চলে যাবো।


ꕥপ্রয়োজনীয় উপকরণসমূহ:ꕥ

✦উপকরণ
পরিমাণ✦
পারশে মাছ
১০০ গ্রাম
কাঁচা পেঁপে
১ টি
গোল আলু
৩ টি
পেঁয়াজ
২ টি
কাঁচা লঙ্কা
১২ টি
কালো জিরা
পরিমাণমতো
সরিষার তেল
পরিমাণমতো
লবন
৫ চামচ
হলুদ গুঁড়ো
৫ চামচ
জিরা গুঁড়ো
১ চামচ


কাঁচা পেঁপে, গোল আলু, পেঁয়াজ


কাঁচা লঙ্কা, সরিষার তেল, লবন, হলুদ গুঁড়ো, জিরা গুঁড়ো


დএখন রেসিপিটা যেভাবে তৈরি করলাম---


❆প্রস্তুত প্রণালী:❆


❖পারশে মাছগুলো কেটে রাখা ছিল, আমি আরেকবার ধুয়ে নিয়ে রেখেছিলাম। এরপর আলুগুলোর খোসা ছালিয়ে নিয়েছিলাম এবং কেটে ছোট ছোট পিচ করে নেওয়ার পরে জল দিয়ে ভালো করে ধুয়ে পরিষ্কার করে নিয়েছিলাম।

❖পেঁপেটির খোসা ছালিয়ে নেওয়ার পরে কেটে ছোট ছোট পিচ করে নিয়েছিলাম এবং জল দিয়ে ধুয়ে নিয়েছিলাম। এরপর পেঁয়াজ দুটির খোসা ছাড়িয়ে নেওয়ার পরে কেটে নিয়েছিলাম। কাঁচা লঙ্কাগুলোও কেটে নেওয়ার পরে জল দিয়ে ধুয়ে নিয়েছিলাম।

❖কেটে রাখা পারশে মাছগুলোতে ১.৫ চামচ করে লবন আর হলুদ গুঁড়ো দিয়ে দিয়েছিলাম। এরপর হাত দিয়ে গায়ে ভালো করে মাখিয়ে নিয়েছিলাম।

❖পারশে মাছগুলো সব ভালো করে ভেজে তুলে নিয়েছিলাম। এরপর কেটে রাখা পেঁপে হালকা তেলে ভালো করে ভেজে তুলে নিয়েছিলাম।

❖আলুর পিচগুলো লাল মতো করে ভেজে তুলে নিয়েছিলাম। এরপর পেঁয়াজ কুচিটা ধুয়ে নিয়ে কড়া করে ভেজে তুলে নিয়েছিলাম।

❖কড়াইতে সরিষার তেল দেওয়ার পরে তাতে গোটা কালো জিরা পরিমাণমতো দিয়ে দিয়েছিলাম। জিরাটা একটু ভাজা মতো হয়ে আসলে তাতে ভেজে রাখা পেঁপের পিচগুলো সব দিয়ে দিয়েছিলাম।

❖পেঁপে দেওয়ার পরে তাতে ভেজে রাখা আলুর পিচ দিয়ে দিয়েছিলাম। এরপর তাতে কড়া করে ভেজে রাখা পেঁয়াজ দিয়ে দিয়েছিলাম।

❖পেঁয়াজ ভাজা দেওয়ার পরে তাতে কেটে রাখা কাঁচা লঙ্কা দিয়ে দিয়েছিলাম। এরপর তাতে স্বাদ মতো ৩.৫ চামচ করে লবন এবং হলুদ গুঁড়ো দিয়ে দিয়েছিলাম।

❖মশলাগুলো সব ভালোভাবে মিক্স করে নিয়েছিলাম। এরপর তাতে পরিমাণমতো জল ঢেলে দিয়েছিলাম।

❖জল দেওয়ার পরে তরকারিটা ফুটিয়ে নিয়েছিলাম এবং আলু আর পেঁপের পিচগুলো সিদ্ধ করে নিয়েছিলাম। এরপর তাতে ভেজে রাখা পারশে মাছের পিচগুলো দিয়ে দিয়েছিলাম।

❖মাছ দেওয়ার পরে হাতা দিয়ে কয়েক পিচ আলু তুলে নিয়েছিলাম এবং চেপে চেপে ভালোভাবে গলিয়ে সফ্ট মতো করে নিয়েছিলাম।

❖আলু গলানো হয়ে গেলে সেটি তরকারিতে আবার দিয়ে দিয়েছিলাম এবং নেড়ে তরকারিতে মিশিয়ে দেওয়ার পরে তরকারিটা ভালোভাবে পরিপূর্ণ হয়ে আসার জন্য ৬-৭ মিনিট ফুল আঁচে দিয়ে রেখেছিলাম।

❖ঝোলটা একটু কমে আসলে আর ঘন হয়ে আসলে আমি জ্বাল নিভিয়ে দিয়েছিলাম এবং কিছু সময় পরে তরকারির উপরে জিরা গুঁড়ো ছড়িয়ে দিয়েছিলাম। এরপর সুস্বাদু পেঁপের তরকারিটা একটি প্লেটে তুলে নিয়েছিলাম পরিবেশন করার জন্য।

রেসিপি বাই, @winkles

শুভেচ্ছান্তে, @winkles


Support @heroism Initiative by Delegating your Steem Power

250 SP500 SP1000 SP2000 SP5000 SP

Heroism_3rd.png

Sort:  
 8 days ago 

পারশে মাছ পেঁপে দিয়ে মজাদার রেসিপি তৈরি করেছেন। আপনার রেসিপির পরিবেশন দেখে অনেক সুস্বাদু মনে হচ্ছে। আপনি খুবই সুন্দরভাবে ধাপে ধাপে রেসিপি তৈরি করলেন। আর পেঁপের অনেক গুণাগুণ নিয়ে আলোচনা করলেন।আসলে দাদা পেঁপের গুনাগুন অনেক রয়েছে, এই কাঁচা পেঁপে আমরা সবজি হিসেবে খায়। আবার কাঁচা পেঁপে সালাদ হিসেবে খাওয়া যায়। আর পাকা পেঁপে ও তো অনেক ভাবর খাওয়া যায়। বিশেষ করে পাকা পেঁপের জুস আমার খুবই প্রিয়। আমি জুস খেতে খুব পছন্দ করি।আর পেঁপেতে খনিজ পদার্থ থাকে যার কারণে হজমশক্তি খুব ভালো কাজ করে। যাই হোক আজকে আপনার পোস্ট পড়ে খুবই ভালো লাগলো। এত মজাদার রেসিপি আমাদের সাথে শেয়ার করার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ।

 6 days ago 
মাছে ভাতে বাঙালি তকমাটি আমরা কিন্তু অনেকদিন আগে থেকে পেয়েছি।পৃথিবীর অন্যান্য দেশের মানুষের তুলনায় আমাদের দেশের মানুষের ভাত এবং মাছের প্রতি আকর্ষণটা একটু বেশি। খাদ্য চাহিদায় আমাদের সবচেয়ে প্রিয় খাবার হচ্ছে ভাত আর মাছ।আর শরীরকে সুস্থ রাখতে ও শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ দূর করার পাশাপাশি জ্বর নিরাময়ে, পেটের সমস্যা দূর করতে, গ্যাস্ট্রিক এবং বদ হজমেও পেপে অনেক উপকারী। কাঁচা পেঁপেতে প্রচুর পরিমাণে এনজাইম থাকে। এতে কেমোপেইন, প্যাপিন, পাইপাইন ও সাইমোপ্যাপিনের মতো উপাদান থাকে।সর্বোপরি,পারশে মাছ দিয়ে পেপের রেসিপিটি দেখতে দারুণ হয়েছে।মাছটি ভেজে নেওয়াতে রেসিপিটিও খুব সুস্বাদু হবে মনে হচ্ছে।আর রেসিপিটির কালারও খুব চমৎকার লাগছে।অসংখ্য ধন্যবাদ দাদা,এত সুস্বাদু ও মজাদার একটি রেসিপি আমাদের মাঝে শেয়ার করার জন্য।
 8 days ago 

খুব ভালো হলো দাদা আপনার পোস্টটি আজকে দেখে । কারণ আমার ফ্রিজে একটি কাঁচা পেঁপে ছিল। মোটামুটি পেকে গিয়েছে। কাজের খেলা কেটে রেখে গিয়েছে আমি তো ভুলেই গিয়েছিলাম। আপনারে পেঁপে দেখে মনে পরল।
তাছাড়া পেঁপে দিয়ে কিভাবে তরকারি রান্না করে খাব সেটাই বুঝতে পারছিলাম না। আপনি পারশে মাছের সঙ্গে পেঁপে এবং আলু দিয়ে বেশ মজাদার করে রান্না করেছেন। পেঁপের যে অনেক উপকারিতা আছে জানি তারপরও কেন যেন পেঁপে খাওয়া হয় না। বরাবরের মতো রেসিপির কালার অনেক লোভনীয় লাগছে দেখতে।

 8 days ago 

পেঁপে দিয়ে পারশে মজাদার রেসিপি তৈরি করেছেন। এই রেসিপিটি দেখে অনেক সুস্বাদু মনে হয়েছে। আপনি খুবই সুন্দরভাবে উপস্থাপন করলেন এবং পেঁপের অনেক গুণাগুণ নিয়ে আলোচনা করলেন।পেঁপে আমারও খুব প্রিয় একটি সবজি এবং ফল।

 8 days ago 

পেঁপে এমন একটি সবজি যা সারা বছর আমার বাসায় চলে। আমার পরিবারের প্রত্যেকে পেঁপের তরকারি পছন্দ করে। এর পুষ্টিগুণ অতুলনীয় এবং খেতে সুস্বাদু হওয়ায় অতৃপ্তি আসেনা কখনো। আজ পারশে মাছ দিয়ে চমৎকার রান্না করেছেন দাদা।
আর মাছগুলো আগে ভেঁজে নেয়াতে স্বাদটা মনে হয় আরো বেড়ে গেছে। এধরনের তরকারি যেমন খেতে ভালো আর আর শরীরের বেশ উপকার করে।
চমৎকার লাগলো তরকারির কালারটা।

দোয়া রইল পুরো পরিবারের জন্য 🥀

 8 days ago 

যাক তাহলে শেষ পর্যন্ত চিংড়ি মাছের খনি শেষ হয়েছে। হা হা হা....🤣 পেঁপের উপকারিতা সত্যিই অনেক রয়েছে। হজমের জন্য এটি বেশ কার্যকরী। তবে তুমি যদি কাঁচা পেঁপে সালাদ হিসেবে খেতে চাও, তাহলে একটু তেতুল দিয়ে দাও ওর মধ্যে, আর খেতে কস লাগবে না । পারশে মাছ আমার খুবই পছন্দ আর সেটা যদি হয় পেঁপের তরকারির সাথে রান্না তাহলে তো কোন কথাই নেই। তরকারিটা দেখতে বেশ সুন্দর হয়েছে। মাঝেমধ্যে দিয়ে তো খেতে পারো। 😁😁

 8 days ago 

দাদা পেঁপে কুচি কুচি করে তেতুল আর শুকনো মরিচ দিয়ে খেতে বেশ ভালো লাগে, আমি শুনেছি কখনও খাই নি।আমার কাছে পাঁকা পেঁপে বেশ ভালো লাগে কাঁচা পেঁপে একদমই ভালো লাগে না কেন জানি।যাই হোক পেঁপে দিয়ে সবজি রান্না করলে খেতে বেশ ভালো লাগে। তবে পেঁপে এভাবে ভেজে যে কোন মাছ দিয়েই রান্না করে খেতে ভালোই লাগে।আপনি পেঁপে ভেজে আলু গলিয়ে পারশে মাছ দিয়ে দারুন একটি রেসিপি তৈরি করছেন।কালার টাও বেশ সুন্দর। প্রতিটি ধাপ আপনি খুব সুন্দর করে দেখিয়েছেন। কালোজিরা দেওয়াতে মনে হয় সুন্দর একটা ফ্লেভার এসেছে।আমার কালোজিরার ঘ্রানটা বেশ ভালো লাগে।দাদা পেঁপে তরকারি খেতে আসতাছি,সবটুকু শেষ করিয়েন না যেন🤭।ধন্যবাদ

 8 days ago 

কাঁচা পেঁপে সালাদ হিসেবে খেতে দেখেছি।

কাঁচা পেঁপের সালাদ কেমন লাগবে খেতে জানি না তবে আমার মনে হচ্ছে খেতে খুব একটা ভালো লাগবে না। তবে আধা পাকা পেঁপে গুলো সরিষার তেল, লবণ, কাঁচামরিচ দিয়ে মাখিয়ে খেতে ভালোই লাগে। পেঁপের সালাতের কথা আজকেই প্রথম শুনলাম দাদা। আর যে কোন রেসিপি তৈরিতে কালোজিরা দিলে খেতে বেশি ভালো লাগে। কথায় আছে কালোজিরা সর্ব রোগের মহা ঔষধ। পেঁপে, আলু ও পারশে মাছের সাথে কালোজিরা দেওয়াতে খেতে নিশ্চয়ই আরো বেশি ভালো লেগেছে। পেঁপের তরকারি খাওয়া সত্যি অনেক উপকারী। পেটের সমস্যা একেবারেই কমে যায়। আমরা সব সময় যে পরিমাণ তৈলাক্ত খাবার এবং ভাজাভাজি খাবার খাই তাতে করে পেঁপে মাঝে মাঝেই তরকারি করে খাওয়া উচিত। তাহলে অন্তত পেট পরিষ্কার থাকবে। আর যারা গ্যাস সঞ্চয় করতে চায় তাদের ব্যাপার একেবারেই আলাদা 😅😅। দারুন একটি রেসিপি তৈরির পদ্ধতি শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি দাদা।

 8 days ago 

দাদা আপনার রেসিপিটা সবার থেকে আলাদা। যে কোন জাগায় আপনার রেসিপিটা দেখলেই আমি চিনতে পারবো, যে এটা আপনার রেসিপি। পেঁপে সবজিটা শরীরের অনেক উপকার করে। আর আপনি তো পেঁপের অনেক গুলো উপকারের কথা পোষ্টে সেয়ার করলেন এছাড়াও পেঁপে বদহজম, কোষ্ঠকাঠিন্য, এসিড রিফ্লাক্স, হৃদযন্ত্রের সমস্যা, অন্ত্রের সমস্যা, পেটের আলসার ও গ্যাস্ট্রিক সমস্যা থেকেও রক্ষা করে। পেঁপে দিয়ে যখন তরকারি রান্না করা হয়, তখন সাথে আলু দিলে অনেক সুস্বাদু হয়। পেঁপের কসটা আলু খেয়ে ফেলে। যার কারনে পেঁপের কসটা তেমন কোন ক্ষতি করতে পারে না। দাদা সর্বপরি খুব উপকারি একটি রেসিপি সেয়ার করলেন। ধন্যবাদ দাদা।

 8 days ago 

পেঁপেভাজি করা এবং রান্না করা খেয়েছি। পেঁপে সালাদ হিসেবে কখনো খাওয়া হয়নি। পেঁপে আমাদের শরীরের জন্য খুবই উপকারী। পেপের অনেক গুনাগুন সম্পর্কে আপনি আমাদের জানিয়েছেন যেগুলো জেনে খুব ভালো লাগলো। পারশে মাছ দিয়ে পেঁপে রান্নার রেসিপি দেখে বোঝা যাচ্ছে খেতে খুবই সুস্বাদু হয়েছে। তবে পারশে মাছ কখনো খাওয়া হয়নি। আপনি কালোজিরা ব্যবহার করেছেন। পেঁপের সাথে কালোজিরা কখনো খাওয়া হয়নি। আমি মিষ্টি কুমড়ার ভাজির সাথে কালোজিরা ব্যবহার করেছি যা খেতে খুবই ভালো লাগে আমার কাছে। আপনার রেসিপিটি একদিন ট্রাই করে দেখব। অসংখ্য ধন্যবাদ আপনাকে সুস্বাদু একটি রেসিপি শেয়ার করার জন্য।

 8 days ago 

বাড়িতে প্বার্শে মাছ বেশীরভাগ সময়ে আলু বা বেগুন দিয়ে পাতলা ঝোল অথবা সরষে পোস্তবাটা দিয়ে সুন্দর একটা ঝাল করা হয়। খেতে বেশ ভালোই লাগে। আপনার রেসিপি সব সময়েই সব্জি দিয়ে ফিউশন থাকে। এবার মা কে পেঁপে দিয়ে ট্রাই করতে বলব তো।

 7 days ago 

দাদা পেঁপে তরকারি কে আমরা ঠান্ডা তরকারি হিসেবে অভিহিত করি।কেননা পেটের যন্ত্রণাদায়ক পীড়া থেকে মাঝে মাঝে পরিত্রাণ করে কাঁচা পেঁপে। তবে কাঁচা পেঁপে মাঝে মাঝে পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া করে এটা সম্পর্কে আজ জানলাম সতর্ক থাকতে হবে। পাকা পেঁপে তো আমার ভীষণ ভীষণ পছন্দ ।পাকা পেঁপের জুস, পাকা পেঁপে এমনি খাওয়া সব ধরনের পছন্দ করে থাকি। কাঁচা পেঁপে সালাদ করে খেতে আমারও কেমন যেন লাগে। পার্শে মাছ দিয়ে কাঁচা পেঁপের তরকারি দিয়ে আপনি পারফেক্ট ভাবে রান্না করেছেন। পার্শে মাছগুলো দেখতে কিছুটা ছোট ছোট মৃগেল মাছের মত লাগে। তবে তরকারি দারুন হয়েছে দাদা এটা মানতেই হবে।

 6 days ago 

কাঁচা পেঁপে বা পাকা পেঁপে আমার খুবই প্রিয়।সারাবছরই পেঁপে খেতে ভালো লাগে।পেঁপে চিংড়ি দিয়ে সুক্ত করে খেতে বেশি মজা লাগে আমার।পেঁপে মাখা ঝাল ঝাল করে শুনেই এখনই খেতে মন চাইছে।তাছাড়া এই উপকারী ফল কাঁচা পেঁপের সালাদ আমি কখনো খায়নি ,এমনি শুধু কাঁচা খেয়েছি।বেশ ভালোই লাগে।যাইহোক পারশে মাছ নিয়ে ছোটবেলার মজার একটা কথা মনে পড়লো দাদা।ছোটবেলায় মা এই মাছ রান্না করলে আমি খাওয়ার আগেই গিলে খুঁজতাম।খুব মজার ছিল শক্ত গিলে খেতে।এখন অতটা দেখি না আমাদের এখানে পার্শে মাছ, মাঝে মাঝে ছাড়া।
আমার মনে হয় আপনাদের ওদিকে বেশি পাওয়া যায় এই মাছ।এই মাছ ভাজি খুবই ভালো লাগে খেতে।আর পেঁপে ভালো লাগার সঙ্গে সঙ্গে মুখে রুচি আসে ও হজম হয়।খুবই সুন্দর ও লোভনীয় হয়েছে রেসিপিটা।কালারটি সুন্দর হয়েছে👌👌।ধন্যবাদ দাদা,ভালো থাকবেন।

 8 days ago 

আসলে পেঁপে যে আমাদের শরীরের জন্য অনেকটা উপকারী সেটা আমার জানা ছিল। কিন্তু আপনার পোস্ট পড়ে আজকের পেপের আরো বেশি উপকারিতা সম্পর্কে জানতে পারলাম। আসলে কাঁচা পেঁপে এবং পাকা পেঁপে দুইটাই আমাদের জন্য ভীষণ উপকারী। আমার কাছেও কিন্তু পেঁপের তরকারি খেতে ভীষণ ভালো লাগে। বিশেষ করে আজকের রেসিপিতে আলু গুলো ভেজে তারপর রান্না করেছেন এতে মনে হয় খাবার স্বাদ আরো বেড়ে গেল। সব সময় আপনার রান্না দেখতে ভীষণ ভালো লাগে।

Coin Marketplace

STEEM 0.18
TRX 0.05
JST 0.022
BTC 16588.88
ETH 1216.77
USDT 1.00
SBD 2.18